ইজি খবর https://www.easykhobor.com/2023/02/Travel-blog.html

Travel blog: ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন


আইফোনে স্টোরেজ সুবিধা গুগল ফটোতে

আপনি কি ভ্রমণ করতে পছন্দ করেন যদি  ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন করেন তবে Travel blog আপনি হয়তো এই বিষয়টি জানেন না বা জানলেও অবাক হবেন যে, এমন অনেক মানুষ আছে ভ্রমণ করাকে একটি পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন এবং ভ্রমণের মাধ্যমে তারা খুব ভালো পরিমাণে অর্থ পেয়ে থাকেন।

তাই ভ্রমণ একমাত্র কাজই হল সারা বছর পৃথিবীর বিভিন্ন আকর্ষণীয় জায়গায় ঘুরে বেড়ানো। যেখান থেকে আপনি অনেক কিছু জানতে পারবেন এবং তা থেকে কিছু আয় করতে পারবেন। আপনি যদি ভ্রমণ করতে ভাল লাগে এবং আপনি যদি ভ্রমণ করেও আয় করতে চান আর আয় করতে Travel blog  ট্রাভেল ব্লগ কিভাবে লিখবেন? জানতে নিচের আর্টিকেলটি দেখে নিতে পারেন।

সূচিপত্রঃ ট্রাভেল ব্লগ

  • ট্রাভেল ব্লগ কি?
  •  ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন
  • ট্রাভেল এজেন্সির কাজ কি?
  • ট্রাভেল ব্লগ যে বিষয় গুলো লক্ষ দিতে হয়
  • ট্রাভেল ব্লগ কিভাবে লিখবেন?
  • ফ্রিল্যান্সার রাইটিং ট্রাভেল ব্লগ

এই ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন এবং তার থেকে আয় করতে তাহলে ট্রাভেল ব্লগ হতে পারে আপনার অর্থ উপার্জন এর সেরা উপায়। তাই শুরুতে ট্রাভেল ব্লগ এ বিষয়ে আপনাকে বিস্তারিত জেনে নিতে হবে একজন  ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন করে সে বিষয়ে সম্পূর্ণ তথ্য আপনার জানা থাকা প্রয়োজন কারণ

আপনি যদি ট্রাভেল ব্লগ Travel blog এই সম্পর্কে না জেনে থাকেন বা কোন কাজ শুরু করার আগে না জানেন তবে আপনি সফল হতে পারবেন না। তাই আজকের এই আর্টিকেলটি ট্রাভেল ব্লগ নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব।

আপনি আরও একটি পদ্ধতি অবলম্বন করতে পারেন আপনি কোন কোম্পানির টুরিস্ট গাইড হিসেবে চাকরি নিতে পারেন টুরিস্ট গাইড হিসেবে কাজ করতে হলে আপনাকে অনেক অভিজ্ঞতা এবং ভ্রমণ এর জায়গা গুলো সম্পর্কে যোগ্যতা অভিজ্ঞতা অর্জন করতে হবে ভ্রমণ বিষয়ে সে জায়গা গুলো সম্পর্কে ভালোভাবে জানতে হবে এবং পরবর্তীতে আপনার ট্রাভেল ব্লক শুরু করতে পারবেন।

ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন

আপনি হয়তো এর আগে ট্রাভেল বিষয়ক অনেক কথা শুনে থাকবেন এবং ট্রাভেল ব্লগিং শব্দটি আপনার বলে থাকবেন তাই আপনার কাছে নতুন মনে হতে পারে সেজন্য ব্লগিং শুরু করার আগে যেসব প্রশ্নগুলো আপনার মনে আসে তার মধ্যে সবচাইতে কমন প্রশ্ন হল আমি ট্রাভেল ব্লগিং করে প্রতি মাসে কত টাকা আয় করতে পারবো উত্তর খুবই সহজ আপনি ঠিক কতটা পরিশ্রম করবেন তার উপর নির্ভর করছে।

আপনারাই আপনি যত্ন করবেন আপনার আইডি থাকবে তবে একজন সাধারণ ট্রাভেল ব্লগার Travel blog কমপক্ষে ১০০০ থেকে ৫০০০ ডলার আয় করে থাকে ট্রাভেল ব্লগাররা তাদের ট্রাভেল ব্লক থেকে যে ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন থেকে আর করে থাকে তার মধ্যে প্রধান মাধ্যম হল google এডসেন্স পার্টনারশিপ, এফিলিয়েট পার্টনারশিপ, বেস্ট ক্যাম্পেইন এবং ফ্রিল্যান্সিং রাইটিং এখন আমরা কিভাবে জানবো একজন ট্রাভেল ব্লগার এর মাধ্যমে ব্লগ আর্টিকেল প্রকাশ করে কত টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

গুগল এডসেন্স Travel blog

গুগলে এডসেন্স নিয়ে নতুন করে কিছু বলার নাই কারণ আপনি হয়তো আমি অনেক আর্টিকেল অনলাইনে বিস্তারিত আলোচনা করেছেন সম্পর্কে না জানেন তাহলে গুগল এডসেন্স এই লেখাটি গুগলে সার্চ করুন এবং অনেক আর্টিকেল পেয়ে যাবেন গুগল এডসেন্স সম্পর্কে আর ট্রাভেল ব্লগাররা তাদের ওয়েবসাইট এর ভিজিটরদের google এর অপশন প্রচুর পরিমাণে থাকে আপনি যদি ভালো ইনফরমেশন সবার সাথে শেয়ার করেন তাহলে শুধু বিজ্ঞাপন দেখলেও অনেক লাইক করতে পারবেন।

এফিলেট পার্টনারশিপ Travel blog

ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন হয়ত অনেকবার অ্যামাজনের নাম শুনেছেন এবং অনেকে হয়তো শুনেছেন এই বিষয়টি আমার জন্য এর মতন যারা কখনো ভ্রমণ করেননি তারা জানতে চায় যে ভ্রমণের সময় কি কি জিনিস একসাথে রাখতে হয় এসব ইনফরমেশন গুলো পড়তে

একজন ট্রাভেল ব্লগার এর ওয়েব সাইটে আসি এবং একজন ট্রাভেল ব্লগার তাদের সাথে এই বিষয়গুলো শেয়ার করে এবং কোনটির থাকলে তার কোনো ভালো করে এই জিনিসপত্র কিনতে পাওয়া যায় তা দেখার ভিতরে লিংক আকারে দিয়ে দেয় তখন কেউ করে কোন প্রোডাক্ট কিনে তখন সে ট্রাভেল ব্লগার এখান থেকে কিছু পরিমাণ কমিশন পাই লাভ করেন।

প্রেস ট্রিপ Travel blog

এই পদ্ধতি যেকোনো ট্রাভেল ব্লগার এর কাছে সবচাইতে আকর্ষণীয় আপনি যখন কোন ট্রাভেল ব্লগার এ খুব জনপ্রিয় হয়ে থাকেন কোম্পানি তাদের কোন পেজ সম্পর্কে তাদের ব্লগে লিখতে বলে আর এই লেখার জন্য কোম্পানিগুলো তাদের অর্থ প্রদান করে এই পদ্ধতিতে হোটেল 2000 ডলার পর্যন্ত সম্মান প্রদান করে থাকেন।

স্পন্সরড ক্যাম্পেইন Travel blog

ট্রাভেল ব্লগার এটা অনেকটা বিজ্ঞাপন দেয়ার মত ধরে নিলাম আপনি ট্রাভেল ব্লগিং করে অনেক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছি এমন সময় অনেক কোম্পানি তাদের কোম্পানির প্রোডাক্ট অথবা সেবা সম্পর্কে মানুষকে জানানোর জন্য আপনার ওয়েবসাইটি একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ দিবে আপনাকে সেই ভোলার অথবা সেবা সম্পর্কে মানুষদের মতামত জানাতে হবে।

তবে একজন ভালো ব্লগার কখনোই যে কোন প্রোডাক্ট অথবা সেবা সম্পর্কে বিজ্ঞাপন তার ওয়েবসাইটে দেয় না সে উত্তর প্রোডাক্ট অথবা সেবা সম্পর্কে যাচাই বাছাই করে এরপর সে বিজ্ঞাপনের জন্য প্রতিবাদ হয় কারণ সেবা অথবা প্রোডাক্টে এর মান যদি ভাল না হয় দের কাছে বিশ্বস্ততা হারাবি যাক খারাপ ফল বয়ে আনবে ট্রাভেল ব্লগার হিসেবে।

ফ্রিল্যান্সার রাইটিং Travel blog

যদি আপনি একজন ট্রাভেল ব্লগার হন তাহলে আপনি ফ্রিল্যান্সার ওয়েবসাইট থেকে মাঝে মাঝে নিজের পন্ডি ত প্রকাশ করার জন্য অন্যান্য ট্রাভেল সম্পর্কে ব্লগে নিজের লেখা প্রকাশ করতে পারেন তবে এসব চাইতে মজার ব্যাপার হলো তাদের এই কাজটিতে করতে হয় না।

সে ওয়েবসাইটগুলোতে তাদের লেখা প্রকাশ করার বিনিময়ের খারাপ ভালো পরিমাণটা দিতে থাকে এছাড়াও সেই লেখাগুলোতে বিভিন্ন লেখা লেখা জায়গায় রেফারেন্স হিসেবে আপনার ওয়েবসাইটের লিংক দিয়ে দিতে পারবেন যা আপনার ট্রাভেল ব্যবসায়ী এর ব্যাক লিংক হিসেবে কাজ করবে।

ট্রাভেল এজেন্সির কাজ কি?

ট্রাভেল এজেন্সির নানান ধরনের কাজ হতে পারে। যেমন : প্লেন এর টিকিট কাটা , বাসের টিকেট কাটা , ট্রেনের টিকিট কাটা , ভ্রমণের সময় নানান ধরনের গাইড করা ও ভ্রমণের সমস্ত দায়- দায়িত্ব নেওয়া, হোটেল বুকিং করা , ট্রাভেলের বিভিন্ন ধরনের প্যাকেজ তৈরি করে বিক্রি করা ইত্যাদি এরকম আরো নানান কাজ রয়েছে ট্রাভেল এজেন্সির।

ট্রাভেল ব্লগ যে বিষয় গুলো লক্ষ দিতে হয়

ট্রাভেল ব্লগ এর লিস্ট টি দিয়েছি, ট্রাভেল ব্লগ কিভাবে লিখবেন? সেখানে যে বিষয় গুলো লক্ষ্য করা হয়েছে সেগুলো হলঃ

  • বাংলা ভাষা
  • ট্রাভেল ব্লগ নিয়ে লেখা
  • ইউজার ফ্রেন্ডলি
  • কপি পেস্ট বিহীন ব্লগ

ট্রাভেল ব্লগ কিভাবে লিখবেন?

আপনি যদি  ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন এই সম্পর্কে না জেনে থাকেন বা কোন কাজ শুরু করার আগে না জানেন তবে আপনি সফল হতে পারবেন না। তাই ট্রাভেল ব্লগ কিভাবে লিখবেন?আজকের এই আর্টিকেলটি ট্রাভেল ব্লগ নিয়েঃ

লেখার সিদ্ধান্ত গ্রহণ Travel blog

আপনি ভ্রমণে বের হচ্ছেন। এমন সময় সিদ্ধান্ত নিতে হবে যে, আপনি ভ্রমণ ব্লগ লিখবেন। অতএব সঙ্গে লেখার আনুসঙ্গিক বিষয়গুলো-নোটপ্যাড, ল্যাপটপ, ক্যামেরা ইত্যাদি সঙ্গে নিতে ভুলবেন না। সাথে স্মার্টফোন তো থাকবেই। আর থাকবে পর্যাপ্ত চার্জের জন্য পাওয়ারব্যাংক। এবার বেরিয়ে পড়ুন। আর যাত্রার মুহুর্তগুলোর গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নোট করুন। ছবি তুলতে একেবারেই ভুলবেন না যেন!

বিষয় নির্ধারণ Travel blog

ট্রাভেল ব্লগ খ্যাতিমান ব্লগারেরা নির্দিষ্ট বিষয়কে ধরে লিখে থাকেন। যেমন-ন্যাচার ট্রাভেল, ফিমেল ট্রাভেল, ফ্যামিলি ট্রাভেল, ফ্যাশন ও লাক্সারি ট্রাভেল, ইউরোপ ট্রাভেল, সাইকেল ট্যুর, ইয়ুথ ট্রাভেল ইত্যাদি। মূলত কোন শ্রেণির পাঠককে লক্ষ্য করে আপনি লিখবেন তা স্থির করতে হবে। যে বিষয়ে লিখবেন সে বিষয়ে আপনাকে অভিজ্ঞ হতে হবে। নিজস্ব সুস্পষ্ট ধারণা থাকতে হবে। আপনার একটি স্বাতন্ত্র্যবোধ থাকবে লেখনিতে, যা পাঠকরা খুঁজে পাবেন।

গুরুত্বপূর্ণ তথ্যের সমাহার Travel blog

আপনি যে ট্রাভেল ব্লগ লিখবেন তা অনেকে পড়বেন। পাঠকদের আগ্রহ তৈরিতে কাজ করতে হবে। তার জন্য আপনার গুরুত্বপূর্ণ তথ্যের সমন্বয় করতে হবে। আপনাকে মনে করতে হবে যে, আপনি যেখানে যাবেন সেখানকার ভ্রমণ খরচ, হোটেল ভাড়া, খাবার খরচ সহ যাবতীয় ট্রাভেল ব্লগ বিষয় লেখনিতে উঠে আসতে হবে।

গল্প আকারে লিখুন Travel blog

ট্রাভেল ব্লগ বা ভ্রমণ ব্লগ লিখতে হয় মজা সহকারে। লেখার পরতে পরতে রসবোধ, কৌতুহলী গল্প ও বিভিন্ন মজার ঘটনার বর্ণনা উল্লেখ করলে পাঠক মনোযোগ দিয়ে পড়েন। যখন ট্রাভেল ব্লগ লিখবেন তখন একটি ভলো ও সুন্দর রূচি সম্মত গল্প সাজিয়ে নিবেন। এমন চমক জাগানো গল্প দিয়ে শুরু করবেন, পাঠকরা লেখা শেষ করেও যেন শেষ করতে না পারেন। একটি ছোট গল্পের মতো হতে পারে-শেষ হয়েও হলো না শেষ!

লেখা হবে বিস্তারিত Travel blog

পাঠকদেরকে আপনার ভ্রমণের বিস্তারিত জানাতে হবে। ওই স্থানে কীভাবে গেলেন, কোন পথে গেলেন, কেমন ব্যয় হলো, কোন পরিবহন ব্যবহার করেছেন, যাত্রাপথ কেমন, নিরাপত্তার দিক ইত্যাদি যাবতীয় লিখবেন। তুলে ধরতে হবে পারিপার্শ্বিক সব বিষয়। মনে করুন, আপনি কোনো স্থানে গেলেন সেটি ঐতিহাসিক একটি জায়গা। আপনাকে সে স্থানের ইতিহাস তুলে ধরে মজাদার তথ্য নিয়ে আসতে হবে। পাঠকদের এর বিস্তারিত জানাতে হবে।

একাধিক ছবি যুক্ত করুন Travel blog

আপনি কোনো জায়গায় ভ্রমণ করেছেন কিনা তার প্রমাণ ছবি। বিভিন্ন অ্যাঙ্গেলে ছবি তুলে নিবেন। গ্রুপ, পারিবারিক কিংবা ব্যক্তিগত ছবির প্রাকৃতিক দৃশ্য দেখে তুলবেন। একটি লেখায় একাধিক ছবি যুক্ত করতে পারেন। ভালো ভালো ছবি লেখাকে আকর্ষণীয় ও নির্ভরযোগ্য করে তুলে।

বিশ্বস্ততা ও সততা বজায় রাখা Travel blog

ট্রাভেল ব্লগ বা ভ্রমণ ব্লগ লেখার ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ বিশ্বস্ততা ও সততা বজায় রাখতে হবে। কোনো স্থানে না গিয়ে ইন্টারনেট সার্চ করে লিখে ফেললে হবে না। এতে করে পাঠক আপনার প্রতি আস্থাহীন হয়ে পড়বেন। নিজের সাধ্য মতো যে স্থানে যাবেন সেটা নিয়েই লিখুন, সততা বজায় রেখে লিখুন। আর সর্বোচ্চ ধৈর্য ধরে পাঠক তৈরিতে নতুন নতুন ধারণা নিয়ে আসুন।

সর্বশেষ কথাঃ ট্রাভেল ব্লগ কি?

আপনি যদি ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন ভ্রমণ করতে আগ্রহী থাকেন এবং একটি ট্রাভেল ব্লগ হিসেবে আত্মপ্রকাশ করতে চান তবে ট্রাভেল ব্লগ কিভাবে লিখবেন? ভালোভাবে জানতে হবে সেগুলো হলো ভ্রমণের স্থান, দেশ-বিদেশ বা সেই স্থানটা বিস্তারিত তথ্য জানা থাকতে হবে।

ট্রাভেল ব্লগ Travel blog সঠিক তথ্য মাধ্যমে আপনি একজন ট্রাভেল ব্লগ এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জন হিসেবে একটি ওয়েবসাইট প্রকাশ করতে পারেন। এখান থেকে আপনি আয় করতে পারবেন যেমন google এডসেন্স এর মাধ্যমে এফিলিয়েট মার্কেটিং এর মাধ্যমে ফ্রিল্যান্সার হিসেবে এবং ট্রাভেলার হিসেবে তাই একজন ভ্রমণ করার জন্য ট্রাভেল ব্লগার Travel blog এর জুড়ী নেই।

আরো পোস্ট দেখুন

পরিচিতদেরকে জানাতে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

অর্ডিনারি আইটি কী?