ডিজিটাল মার্কেট কি?মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং-

বর্তমান সময়ে কোন প্রোডাক্টস এবং সার্ভিসের মার্কেটিং করার জন্য যে মার্কেট তৈরি হয় সেটা ডিজিটাল মার্কেট বা টেকনিকেল ব্যবহার করা হয়।মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং আজকের দিনে যে কোন প্রোডাক্টস কে মার্কেটিং করার জন্য ডিজিটাল ডিভাইসের সাহায্যে মার্কেটিং করা হয়।

ডিজিটাল মার্কেট কি?মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং-

সূচিপত্রঃ ডিজিটাল মার্কেটিং

আপনি কোথায় ডিজিটাল মার্কেটিং করতে চান।মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চান, তাহলে আজকে আর্টিকেলটি পডুন ডিজিটাল মার্কেট কি ও কি করে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে হয় এবং ডিজিটাল মার্কেটে গুরুত্ব কি এ সমস্ত প্রশ্নগুলি উত্তর পেয়ে যাবেন।

ডিজিটাল মার্কেট কি?What is Digital Market?

মোবাইল ইন্টারনেট কম্পিউটার এবং ইলেকট্রনিক্স ডিভাইসের সাহায্যে যখন মার্কেটিং করা হয় তখন সেটাকে ডিজিটাল মার্কেটিং বলে।এর মানে কোন প্রোডাক্টস ও সার্ভিসে মার্কেটিং যখন ডিজিটাল ডিজিটাল digitally লিক করা হয়ে থাকে।

সে ধরনের মার্কেটিংকে ডিজিটাল মার্কেটিং এর অন্তর্গত। আগের দিনে বেশিরভাগ মার্কেট বা মার্কেটিং পোস্ট এবং ব্যানারে লাগিয়ে করা হতো কিন্তু আজকের দিনে, এই ডিজিটাল যুগে সোশ্যাল মিডিয়া, ইমেইল, ওয়েবসাইট ইত্যাদির মাধ্যমে মার্কেটিং করা হয় এটি হলো আজকের দিনে মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং করার একটি নতুন প্রক্রিয়া।

মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং।

মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং এর সাহায্যেে মার্কেটিং করলে যে কোন কোম্পানি বা প্রতিষ্ঠান অল্প সময়ের মধ্যে টার্গেট কাস্টমারদের কাছে পৌঁছে যাই। যেহেতু এটি ইন্টারনেটের মাধ্যমে করা হয়ে থাকে। তাই এটিকে অনলাইন মার্কেটিং ও বলা হয়।

ডিজিটাল মার্কেটিং এর মানে হল সঠিক সময়ে সঠিক কাস্টমারের কাছে প্রোডাক্ট পৌঁছে দেওয়া। বর্তমানে বেশির ভাগ কাস্টমার বেশিরভাগ সময়ে সোশ্যাল মিডিয়া এবং ইন্টারনেট মধ্যে কাটিয়ে থাকে। তাই এর জন্য মার্কেটিং গুলিকে ডিজিটাল করা হচ্ছে।

Digital Marketing মানে কি?মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং

অল্প কথায় Digital Marketing হল ইলেকট্রনিক মিডিয়াকে ব্যবহার করে ইন্টারনেট দুনিয়ায় পণ্য, প্রতিষ্ঠান বা ব্র্যান্ডের প্রচারনা বা বিজ্ঞাপন দেয়া। বিশেষ করে সোশ্যাল মিডিয়াগুলোতে বিজ্ঞাপন দেয়ার হার বর্তমানে সবচেয়ে বেশি।

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শুরু করব।মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং

ডিজিটাল মার্কেটিং এর অনেকগুলো পার্ট রয়েছে। সেগুলোর অধিকাংশই আপনি মোবাইল দিয়েই করতে পারবেন যদি আপনার ইচ্ছা এবং কাজ করার আগ্রহ থাকে। তেমনি ডিজিটাল মার্কেটিং বর্তমান ডিজিটাল মার্কেটিং করার জন্য বেসিক যে সমস্ত জিনিসগুলি করা হয় সেগুলো হলো।

ব্লগিং মার্কেটিং কি? What is Blogging Marketing?

ব্লক হলো ডিজিটাল মার্কেট করার সবচেয়ে সহজ উপায় আপনি নিজস্ব একটি ব্লক বানিয়ে সেখানে কোম্পানি বিভিন্ন প্রোডাক্টস এর লিস্ট তৈরি করে এসে ব্লগের টার্গেট অডিয়েন্স নিয়ে এসে মার্কেটিং করতে পারেন।

কন্টেন্ট মার্কেটিং কি? What is content marketing?

আপনি যদি একটি নিজস্ব ব্লগ না থাকে তাহলে আপনি কন্টেন্ট তৈরি করে মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং সেখানে প্রোডাক্ট সম্পর্কিত বিস্তারিত ইনফরমেশন জব করতে পারেন এবং অন্যান্য ব্লগের সাথে যোগাযোগ করে সে কনটেন্টটি তাদের ব্লগে পাবলিশ করতে পারেন মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং করে। যার মাধ্যমে আপনি ব্লগে থাকা ট্রাফিক আপনার প্রোডাক্টস কাস্টমার রূপে ফিরে আসবে এবং ট্রাফিক দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং করতে পারবেন

সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং কি?What is Social Media Marketing?

বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং হল ডিজিটাল মার্কেটিং এর একটি অংশ। যেহেতু সোশ্যাল মিডিয়া প্রচুর পরিমাণে মানুষ সময় ব্যয় করে কাটাতে পারে সেহেতু আপনি সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম এর মাধ্যমে তাদের কাছ থেকে আপনার পণ্যটি পৌঁছে দিতে পারবেন।সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে মার্কেটিং করার জন্য ফেসবুক টুইটার লিংকেড ইনস্টাগ্রাম স্ন্যাকস্যাপ এবং এর মত জনপ্রিয় প্লাটফর্ম গুলি ব্যবহার করতে পারেন।

গুগল এড ওয়ার্ড Google AdWords

গুগল এডওয়ার্ডস হলো গুগলের তৈরি একটি এড প্ল্যাটফর্ম যেখানে সাধারণত মানুষ থেকে বড় বড় কোম্পানি গুগলের সাহায্যে এডভারটাইজমেন্ট দিতে পারে। যেহেতু গুগলে প্রচুর পরিমাণে ট্রাফিক রয়েছে তাই আপনি কিছু পয়সা খরচ করে ডাইরেক্টলি google এ এড ads place করে প্রোডাক্টস এর মার্কেটিং করতে পারেন।

আপনি এখানে টেক্সট অন ইমেজ এন্ড ভিডিও এডস ম্যাচ কনটেন্ট এন্ড স্পন্সরাইজ গিফট অ্যাড হয়ে যাবেন। আপনি টার্গেট অডিয়েন্স বেছে নিয়ে গুগল এডওয়ার্ড এর সাহায্য নিতে পারেন।

এপ্স মার্কেটিং Apps Marketing.

আপনি কিছু কোম্পানি আছে যারা তাদের নিজস্ব এপ্লিকেশন বানিয়ে সেগুলো ইউজারের মাধ্যমে পৌঁছে দিয়েছে। এবং তাদের অ্যাপ্লিকেশনের ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়ে গেছে তখন সে অ্যাপ্লিকেশনটির মধ্যে বিভিন্ন প্রোডাক্টস এর মার্কেটিং করে কাস্টমারকে খুঁজে থাকে।তবে মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিংয়ের জন্য আপনাকে কোন অ্যাপস এর মালিক হতে হবে না আপনি শুধু সে সমস্ত অ্যাপস মালিকদের সাথে যোগাযোগ করুন, যারা তাদের অ্যাপ্লিকেশনের মধ্যে আপনার প্রোডাক্টস এন্ড এডভার্টাইজমেন্ট করবে।

ইউটিউব মার্কেটিং  কি? What is YouTube Marketing?

আজকাল ইউটিউব এর মাধ্যমে ভিডিও মার্কেটিং করা হয়ে থাকে এবং বড় বড় ইউটিউব চ্যানেলতাদের ভিডিওর মাধ্যমে বিভিন্ন অ্যাডভার্টাইজমেন্ট এর সাহায্যে বিভিন্ন প্রোডাক্ট প্রমোট করে থাকে।আপনি বড় বড় ইউটিউবারদের সাথে যোগাযোগ করে তাদের চ্যানেলে আপনার প্রোডাক্টের মার্কেটিং সম্পর্কে আলোচনা করতে পারেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায়। মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং

আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে আগ্রহী হন তাহলে এক নিচের দেওয়া পদ্ধতি গুলো অনুসরণ করে আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং শিখে নিতে পারেন বর্তমানে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখে অনেক আয় করা সম্ভব সেজন্য ডিজিটাল মার্কেটিং শিক্ষা বর্তমান সময়ে একটি উপযোগী।সেজন্য ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখতে হয় বা শিখার উপায় তার নিচে দেওয়া হল।

গুগল ফ্রী কোর্স। Google Free Course.

আপনি যদি বিনামলে ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স করতে চান তাহলে আপনি গুগলে সাহায্য নিতে পারেন। গুগল প্রত্যেক ব্যবহারকে তার নিজস্ব ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স শেখার পারমিশন দিয়েছে এবং এটির জন্য আপনাকে কোন টাকা দিতে হবে না।

আপনি বিনামূল্যে ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স শিখতে চান তাহলে গুগলে গিয়ে google ডিজিটাল গ্যারেজ লিখে সার্চ করুন এরপর গুগলে ওয়েব সাইটটিতে সব সময় ক্লিক করে জিমেইল একাউন্ট এর সাহায্যে লগইন করে পোস্টটিতে অংশগ্রহণ করতে পারেন।সেখানে ভিডিওর মাধ্যমে আপনি সম্পূর্ণ কোর্সটি শিখে নিতে পারবেন।

youtube ভিডিও দেখে বর্তমানে আমরা সকলে জানি যে আজকের দিনে youtube হল সবচেয়ে জনপ্রিয় ভিডিও প্ল্যাটফর্ম আপনি সেখানে সমস্ত ক্যাটাগরি ভিডিও দেখতে পারবেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার জন্য অনেক ভালো ভালো ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে যেগুলো আপনি youtube সার্চ করে যে কোন একটি চ্যানেলে গিয়ে সেই চ্যানেলে ভিডিওগুলি দেখে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে কিছু জ্ঞান বা ধারণা করতে পারবেন।

প্রতিষ্ঠানে গিয়ে। Go to the institution.

আপনার ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স শিখতে চাইলে আপনি প্রতিষ্ঠানের সার্টিফিকেট সম্মত ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে চাইলে আপনি নিকটবর্তী কোন কলেজ বা প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হয়ে যান সেখানে আপনি নির্দিষ্ট করছি কমপ্লিট করার পর ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে বিস্তারিত শিখে নিতে পারবেন।

কিভাবে বই পড়ে ডিজিটাল মার্কেটিং How to read the book Digital Marketing

ডিজিটাল মার্কেটিং করার জন্য অনেক বই রয়েছে আপনি চাইলেই সেই সমস্ত বইগুলো পড়ে নিতে পারেন আপনি সোজা গুগল থেকে ডিজিটাল মার্কেটিং বইগুলি সম্পর্কে ধারণা পেয়ে যাবেন সেখানে থেকে কতগুলি বই বেছে নিয়ে সেটিকে পড়তে পারেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং এর গুরুত্ব।মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং

মানুষ এখন বর্তমানে হাতের মুঠোয় স্মার্টফোন পেয়ে গেছে। তাই মানুষ টিভি নিউজ পেপার ম্যাগাজিন রেডিও এ সমস্ত বেশ কিছু ব্যবহার করছে তখন এর জন্য এইসব জিনিসের উপর অ্যাডভার্টাইজমেন্ট দিয়ে কাস্টমারকে কাছে পৌঁছানোর চেষ্টা করত।

এবং নির্দিষ্ট কাস্টমার সেই জিনিসটি পছন্দ হলে বাজারে থেকে নিয়ে আসতো। কিন্তু আজকের দিনে বেশিরভাগ মানুষের হাতে স্মার্টফোন থাকার কারণে তাদের আর বেশিরভাগ সময় সোশ্যাল মিডিয়ার মত প্ল্যাটফর্ম গুলোতে সময় কাটায়।কারণ আজকের দিনে য়ে সব পরিবর্তন তা হলঃ

  1. টিভি এ জায়গায় ইউটিউবে ভিডিও দেখে।
  2. খবরের জায়গায় সোশ্যাল মিডিয়া এবং ব্লগ দেখে খবর পড়ে।
  3. রেডিওর জায়গায় এখন নতুন অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করে গান শুনে।

এ সকল মার্কেটিং এজেন্সি গুলো তাদের প্রোডাক্টস এবং সার্ভিসগুলোকে ডিজিটালাইজ প্রমোশন করা দায়িত্ব দেয়।

ডিজিটাল মার্কেটিং এর সব থেকে বড় সুবিধা এবং গুরুত্ব হল যেকোনো ধরনের বড় বা ছোট কোম্পানি খুব সহজে কম খরচে তাদের প্রোডাক্টসগুলিকে টার্গেট অডেন্স হিসেবে সকলের সামনে তুলে ধরতে পারে।

ইন্টারনেট ব্যবহারকারী ও সেই সকল এডভার্টাইজমেন্ট গুলো দেখে অনলাইন এবং অফলাইনে মার পথে কেনাকাটা করতে পারেন এছাড়া বিভিন্ন ই-কমার্স থেকে সরাসরি পণ্য কিনতে তাদেরকে বাজারে গিয়ে সময় নষ্ট করতে হয় না 

ট্রাডিশনাল মার্কেটিং ও ডিজিটাল মার্কেটিং এর মধ্যে পার্থক্য।

অনলাইনে মার্কেটিং এবং অফলাইনে মার্কেটিং দুই ধরনের মার্কেটিং এজেন্সি কাজ একটাই। সেটি হলো দেশের কাস্টমারের কাছে প্রোডাক্ট এবং সার্ভিস গুলিকে পৌঁছে দেওয়া।

অফলাইন মার্কেটিং এ ক্যারিয়ার এবং পোস্টার ছাপাতে প্রচুর পরিমাণে মূলধনের দরকার হয় কারণ একটি ব্যানারে এবং একটি পোস্টারে শুধুমাত্র একটি জায়গায় লাগানো যায়।

কিন্তু অফলাইন মার্কেটিং থেকে যদি অনলাইন মার্কেটিং এ ডিজিটাল মার্কেটিং এর একবার কোন ব্যানার তৈরি করে সেটি সারাজীবন ব্যবহার করা যায়। যার ফলে অনেক কম্বল ধরনের যে কোন প্রোডাক্ট মার্কেটিং করা খুব সহজ হয়।

সর্বশেষ কথাঃ মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং

বর্তমানে মানুষ এখন হাতের মোট হয় সবকিছু পেয়ে যাচ্ছে সেজন্য ডিজিটাল লাইফ যুগে বর্তমান মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং, ডিজিটাল মার্কেটিংয়ের গুরুত্ব এবং এর ব্যবহার দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।ডিজিটাল মার্কেট কি এবং কেন ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় সমূহ কি এই সমস্ত বিষয়ে আপনারা জানানোর চেষ্টা করেছে।

আশা করি আপনার উপকৃত হবেন। মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং হলো ইন্টারনেট কম্পিউটার এবং ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস এর সাহায্যে যা সেটাকে ডিজিটাল মার্কেটিংও বলা হয়ে থাকে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0মন্তব্যসমূহ

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন (0)

#buttons=(Ok, Go it!) #days=(20)

Our website uses cookies to enhance your experience. Check Now
Ok, Go it!